বছর শেষেও উর্ধ্বগতি বাজারে

0

বছরের শেষ দিনে বাজারে বেড়েছে মুরগি ও সবজির দাম। তবে কিছুটা কমেছে পেঁয়াজের দাম। এছাড়া বাড়তি দামেই বিক্রি হচ্ছে অন্যান্য পণ্যে।

শুক্রবার (৩১ ডিসেম্বর) সকালে রেয়াউদ্দিন বাজার, চকবাজার, কাজীর দেউড়ি বাজার ঘুরে এ তথ্য পাওয়া যায়।

বাজারে গত সপ্তাহের দামে বিক্রি হচ্ছে সবজি। এসব বাজারে প্রতিকেজি শিম ৫০ থেকে ৬০ টাকা, বেগুন ৬০ টাকা, আলু ২০ থেকে ২৫ টাকা, ফুল কপি ৪০ টাকা, টমেটো ৬০ থেকে ৮০ টাকা, করলা ৬০ টাকা, বরবটি ৮০ টাকা, কাঁচামরিচ ৬০ টাকা, গাজর ৫০ টাকা, মিষ্টি কুমড়ার ৪০ টাকা, শসা ৬০ টাকা, চিচিঙ্গা ৫০ টাকা, পটল ৫০ টাকা, ঢেঁড়স ৬০ টাকা, মুলা ৪০ থেকে ৫০ টাকা, পেঁপের ৪০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এসব বাজারে প্রতিকেজি নাজিরশাইল চালে ৭০ টাকা, মিনিকেট ৬৩ থেকে ৬৫ টাকা, আটাশ চাল ৫০ টাকা, পোলাওচাল ১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

পেঁয়াজ প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৩০ থেকে ৪০ টাকা। এছাড়া মশলার বাজারে রসুন ৫০ থেকে ৬০ টাকা কেজি, আদার কেজি ৬০ থেকে ৬৫ টাকা, শুকনা মরিচ ১৫০ থেকে ২৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এসব বাজারে ভোজ্যতেলের প্রতি লিটার খুচরা বিক্রি হচ্ছে ১৬০ টাকা। বাজারে প্রতি কেজি চিনি বিক্রি হচ্ছে ৮০ টাকায়। এছাড়া প্যাকেট চিনি কেজি বিক্রি হচ্ছে ৮৫ টাকায়।

আবারো বাজারে বেড়েছে মুরগির দাম। ব্রয়লার মুরগির বিক্রি হচ্ছে ১৬০ থেকে ১৭০ টাকা, সোনালি মুরগি ২৯০ টাকা, লেয়ার মুরগির ২৩০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

মাছের বাজারে প্রতিকেজি তেলাপিয়া ১৫০ টাকা, রুই ২৬০ থেকে ২৭০ টাকা, কাতলা ২৮০ টাকা, পাঙ্গাস ১৫০ টাকা, রূপচাঁদা ১২শ টাকা, চিংড়ি ৬০০ থেকে ৮০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

জয়নিউজ/হিমেল/পিডি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...