বলাৎকার চেষ্টার অভিযোগে ইমামকে চবি ছাত্রদের পিটুনি

0

ক্যান্টিনের কর্মচারীকে বলাৎকার চেষ্টার অভিযোগে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ফরেস্ট্রি এন্ড এনভায়নমেন্টাল সায়েন্স ইন্সটিটিউট মসজিদের পেশ ইমামকে গণপিটুনি দিয়েছে ছাত্ররা। পরে তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

বুধবার (৮ ডিসেম্বর) বিকেলে পাঁচটার দিকে মাস্টারদা সূর্যসেন হলে তাকে মারধর করা হয়। অভিযুক্ত ইমামের নাম শহিদুল ইসলাম। তিনি হাটহাজারী উপজেলার মৃত ফয়েজ আহমেদের ছেলে। তিনি মাস্টারদা সূর্যসেন হলের ক্যান্টিনে কর্মরত শিশু সাগর হোসেনকে বলাৎকারের চেষ্টা করেছেন বলে অভিযোগ শিক্ষার্থীদের।

মারধরের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মাস্টারদা সূর্যসেন হলের প্রভোস্ট ড. তড়িৎ কুমার বল। তিনি বলেন, ‘ফরেস্ট্রি ইন্সটিটিউটের মসজিদের পেশ ইমামের বিরুদ্ধে আমাদের হলের ক্যান্টিনের এক কর্মচারীকে বলাৎকার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। আমাকে কর্মচারীরা জানিয়েছে, ছাত্ররা কিছু বলেনি। কর্মচারীরা জানালো তাকে নাকি মারধরও করা হয়েছে। এখন বিষয়টা খুবই স্পর্শকাতর। তদন্ত ছাড়া কিছু বলা সম্ভব নয়। তবে মসজিদটি ইন্সটিটিউটের অধীনে। আমি ইন্সটিটিউটের পরিচালককে জানাবো।’

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া বলেন, ‘ফরেস্ট্রির ইমামের বিরুদ্ধে বলাৎকার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। ছাত্ররা তাকে মারধরও করেছে। তিনি এখন চিকিৎসা নিচ্ছেন। আমরা বিষয়টা তদন্ত করে ব্যবস্থা নিব।’

জয়নিউজ/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...