মন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন দেখেছেন কাজী ইব্রাহীম: ডিবি

0

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় দুই দিনের রিমান্ডে রয়েছেন মুফতি কাজী ইব্রাহীম। তাকে জিজ্ঞাসাবাদে বেরিয়ে এসেছে বিভ্রান্তিকর নানা তথ্য।

জিজ্ঞাসাবাদে কাজী ইব্রাহীম জানিয়েছেন— ‘স্বপ্ন দেখেছেন, তিনি মন্ত্রী হবেন’। তার রিমান্ডে দেওয়া তথ্য যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা।

গোয়েন্দা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার হারুন অর রশীদ বলেন, ‘কাজী ইব্রাহীম রিমান্ডের দ্বিতীয় দিন পর্যন্ত যা যা বলেছেন তা সবই তিনি স্বপ্নে দেখতেন। স্বপ্নের মাধ্যমে তিনি বিভিন্ন ইসলামিক বক্তব্য, করোনাভাইরাস নিয়ে উদ্ভট সব বক্তব্য, এমনকি তিনি এক সময় মন্ত্রীও হবেন বলে স্বপ্ন ছিল।

মূলত এ লোভেই তিনি বিভিন্ন ওয়াজ কিংবা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভ্রান্তিমূলক বক্তব্য দিয়েছিলেন। যার প্রধান উদ্দেশ্যই ছিল নিজেকে জাহির করা। পাশাপাশি দেশের ভেতরে বিশৃঙ্খলা তৈরি করা।

তার স্বপ্ন দেখার পেছনে আর কারও সংশ্লিষ্টতা আছে কিনা— এ প্রশ্নের উত্তরে হারুন অর রশীদ আরও বলেন, রিমান্ডে পাওয়া তথ্য সবই যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে।

গোয়েন্দাদের জিজ্ঞাসাবাদে ইব্রাহীম বলেছেন, ‘তিনি এ পর্যন্ত যা যা করেছেন সবকিছুই কোরআন ও হাদিসের আলোকে করেছেন বলে জানান। কোনো সুনির্দিষ্ট প্রশ্নের সন্তোষজনক কোনো জবাব দিতে পারেননি তিনি। কথা বলছেন এলোমেলোভাবে।

পাশাপাশি বিভিন্ন সময়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার দেওয়া বক্তব্যের বিষয়ে জানার চেষ্টা করা হলে তিনি তা কৌশলে এড়িয়ে যাচ্ছেন। শুধু বলছেন তিনি যা করেছেন যা বলেছেন সবই কোরআন ও হাদিসের আলোকে বলেছেন।’

প্রসঙ্গত, সোমবার (২৭ সেপ্টেম্বর) গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল মোহাম্মদপুর থেকে মুফতিকে আটক করে। পরে তার বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাৎ ও ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দুটি মামলা হয়। ওই মামলায় তাকে দুই দিনের রিমান্ডে নেয় গোয়েন্দারা। শুক্রবার (১ অক্টোবর) দুই দিনের রিমান্ড শেষ হচ্ছে।

জয়নিউজ/এসআই
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...