১৫ জুনের পরও ‘সীমিত পরিসরে’ সরকারি অফিস

0

১৫ জুন পর্যন্ত যে পদ্ধতিতে সরকারি অফিস পরিচালনার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ঘোষণা দিয়েছিল তা আরো দীর্ঘায়িত হচ্ছে। এ নিয়ে আজ রোববার বা আগামীকাল প্রজ্ঞাপন জারি হতে পারে।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ও জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, টানা ৬৬ দিনের সাধারণ ছুটির পর গত ৩১ মে থকে ১৫ জুন পর্যন্ত ‘সীমিত পরিসরে’ অফিস খোলার সিদ্ধান্ত নেয় সরকার। গত ২৮ মে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপনে অফিস স্মারক জারি করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

এরপর কী পদ্ধতিতে সরকারি অফিস পরিচালিত হবে তা নিয়ে চিন্তা করছে সরকার। এ ক্ষেত্রে নতুন সিদ্ধান্ত আসার সম্ভাবনা কম বলে জানা গেছে। বর্তমানে যেভাবে সীমিত পরিসরে অফিস পরিচালিত হচ্ছে তা-ই চলমান থাকবে।

লকডাউন এলাকায় সাধারণ ছুটি
এলাকভিত্তিক লকডাউন পরিকল্পনা বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে যেসব এলাকা রেড জোনের আওতাধীন থাকবে সেসব এলাকায় সরকারি-বেসরকারি চাকরিজীবীদের জন্য সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হবে। এলাকাভিত্তিক লকডাউন নিয়ে দফায় দফায় বৈঠক করছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা।

গত শুক্রবার কয়েকজন মন্ত্রী ও মেয়রের মধ্যে হওয়া ডিজিটাল বৈঠকে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। ইয়েলো ও গ্রিন জোনে বিদ্যমান নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে অফিস খোলা থাকবে। গণপরিবহনও চলবে সীমিত পরিসরে। তবে রেড জোনে যে সাধারণ ছুটি থাকবে সে বিষয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে কোনো প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়নি।

জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন সাংবাদিকদের জানান, যে অবস্থায় চলছে সব কিছু সেভাবেই চলবে। নতুন করে ছুটি ঘোষণা করা হবে না। যে এলাকা রেড জোন থাকবে, সেখানে সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হবে।

জয়নিউজ/পিডি
আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...