অস্ত্র জমা দিচ্ছে নিউজিল্যান্ডবাসী

0

সরকারি নিষেধাজ্ঞা মেনে আধা-স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র জমা দেওয়া শুরু করেছে নিউজিল্যান্ডবাসী। চলতি বছরের মার্চ মাসে ক্রাইস্টচার্চে দুই মসজিদে এক অস্ট্রেলিয় বন্দুকধারী আধা-স্বয়ংক্রিয় বন্দুক নিয়ে প্রার্থনারত মুসলমানদের ওপর হামলা চালায়। এই ঘটনার পরপরই আধা-স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র নিষিদ্ধ ঘোষণা করে নিউজিল্যান্ড সরকার।

এক ঘোষণায় জানানো হয়, আধা-স্বয়ংক্রিয় অস্ত্রগুলো মালিকদের কাছ থেকে কিনে নেবে সরকার। ওই ঘোষণার বাস্তবায়ন হিসেবেই এই অস্ত্র জমা দেওয়া শুরু হয়েছে।

খবরে বলা হয়, শনিবার (১৩ জুলাই) অস্ত্র জমা দেওয়ার প্রথমদিন ক্রাইস্টচার্চে ২৫০ জনের বেশি মানুষ অস্ত্র জমা দেয়। এরমধ্যে ২২৪ জন বন্দুকের মালিককে ২ লাখ ৩০ হাজার ডলার পরিশোধ করা হয়। অস্ত্রগুলো জমা নেওয়ার পর তা ধ্বংস করে দেওয়া হয়।

ক্রাইস্টচার্চের আঞ্চলিক পুলিশ কমান্ডার মাইক জনসন বলেন, পুলিশ এই প্রক্রিয়াটিকে আইন মেনে চলায় আগ্নেয়াস্ত্র মালিকদের জন্য একটি বড় সুযোগ হিসেবে দেখছে। পাশাপাশি জনগণের কাছ থেকেও বেশ ইতিবাচক প্রতিক্রিয়া পাওয়া যাচ্ছে। তারা জানায়, এই প্রক্রিয়া তাদের জন্যও সুবিধাজনক। পুরো ক্যান্টবেরি অঞ্চলজুড়ে ৯০০র বেশি মানুষ ১ হাজার ৪১৫টি অস্ত্র জমা দেওয়ার জন্য নিবন্ধন করেছেন।

উল্লেখ্য, পুরো অস্ত্র জমা নেওয়ার প্রক্রিয়াটির জন্য নিউজিল্যান্ড সরকার মোট ১১ কোটি ডলার ভর্তুকি দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে।

জয়নিউজ/আরসি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...