মহেশখালীতে দিনেদুপুরে যুবকের কব্জি কেটে নিল সন্ত্রাসী রইক্যা

0

মহেশখালীর হোয়ানক কালালিয়া কাটা নামক এলাকায় দিনে দুপুরে মোকাররম (২৭) নামের এক সিএনজি চালকের ডান হাতের কব্জি কেটে নিয়েছে সন্ত্রাসী রকি।

মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) দুপুর ২টায় এই ঘটনা ঘটে। মুমূর্ষু অবস্থায় ওই সিএনজি চালককে স্থানীয়রা উদ্ধার করে মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

আহত ড্রাইভার মোকাররম কালারমারছড়া উত্তর নলবিলা চালিয়াতলীর মোস্তাক আহমদের পুত্র। সে দীর্ঘদিন ধরে মহেশখালী সড়কে সিএনজি চালিয়ে আসছিলো।

জানা গেছে, আহত মোবারকের শরির থেকে ডান হাত বিচ্ছিন্ন করে ফেলেছে সন্ত্রাসীরা। তার অবস্থা আশংকা জনক তার প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়েছে।

তার সহকর্মীরা জানায় সকাল আনুমানিক ১১ টার সময় একটি রিজার্ভ ভাড়া নিয়ে মোকারম হোয়ানকে যায় সেখানে দুর্বৃত্তরা তার হাত কেটে নিয়েছে বলে পরে জানতে পারেন তারা।

আহত মোকাররমের পরিবারের দাবী পরিকল্পিত ভাবে সন্ত্রাসীরা ড্রাইভার মোকাররমের হাত কেটে নিয়েছে। এই ঘটনার সাথে জড়িত সন্ত্রাসীদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবী জানান তারা।

মোকাররমের পরিবার দাবী করছেন পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পরিকল্পিত ভাবে তাকে রিজার্ভ ভাড়ার কথা বলে হোয়ানকে নিয়ে গিয়ে পাহাড়ে তুলে তার হাত কেটে নিয়েছে হোয়ানকের আনুর পুত্র সন্ত্রাসী রইক্যা।

এই বিষয়ে মহেশখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রণব চৌধুরী জানান, ড্রাইভার মোকাররমের সাথে চট্টগ্রামে থাকাকালীন হোয়ানক কালালিয়া কাটা এলাকার এক ব্যক্তির দ্বন্দ্ব ছিলো।

সে দ্বন্দ্বের পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ওই ব্যক্তির ছোট ভাই হোয়ানকের কালালিয়া কাটা এলাকার আবদুর রহমান (প্রকাশ রইক্যা) আজ দুপুরে মোকাররম নামের এ ড্রাইভারের হাত কেটে নিয়েছে।

এই ঘটনায় আবদুর রহমান (প্রকাশ রইক্যা) সহ জড়িতদের গ্রেফতারে মহেশখালী থানার একাধিক টিম কাজ করছে বলে জানান তিনি।

জেএন/ইসলাম/পিআর

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...