যুক্তরাষ্ট্র পরমাণু অস্ত্র বহনে সক্ষম বি-২১ বিমান উন্মোচন করেছে

0

নতুন একটি সর্বাধুনিক নিউক্লিয়ার স্টেলথ বোমারু বিমানের উন্মোচন করেছে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান বাহিনী। যেটির নাম দেওয়া হয়েছে বি-২১।

বিবিসি জানায়, ৩০ বছরের মধ্যে এই প্রথম নতুন কোনো বোমারু বিমান আনছে যুক্তরাষ্ট্র। যেটির প্রতিটির দাম পড়বে প্রায় ৭০ কোটি মার্কিন ডলার।

বোমারু বিমানটি পরমাণু এবং অন্যান্য অস্ত্র বহনে সক্ষম। নিরাপত্তার খাতিরে বি-২১ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য গোপন রাখা হয়েছে।

যু্ক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেন, ‘এটি উদ্ভাবনী দক্ষতা এবং নতুনত্বে যুক্তরাষ্ট্রের টেকসই অগ্রগতির প্রমাণ।’

গ্লোবাল অ্যারোস্পেস, ডিফেন্স অ্যান্ড সিকিউরিটি কোম্পানি ‘নরথর্প গ্রুম্যান’ বি-২১ বোমারু বিমানটি তৈরি করেছে।

শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় তাদের কারখানায় এই বিমানটি আনুষ্ঠানিকভাবে প্রথম জনসম্মুখে প্রকাশ করা হয় বলে জানায় বিবিসি।

প্রতিরক্ষামন্ত্রী অস্টিন বলেন, এই বিমান যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান বিমান বাহিনীর সক্ষমতায় উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি সাধন করবে।

তিনি বলেন, ‘এমনকি সবথেকে আধুনিক আকাশ সুরক্ষা ব্যবস্থাও আকাশে বি-২১ কে চিহ্নিত করতে হিমশিম খেয়ে যাবে।

বিমানটি নকশা এমন ভাবে করা হয়েছে যে সেটিকে ওইসব নতুন অস্ত্র যেগুলো এখনো আবিষ্কার হয়নি সেগুলো বহনের উপযোগী করেও তোলা যাবে’, জানান অস্টিন।

আগামী বছর বি-২১ বিমান যুক্তরাষ্ট্রের বিমান বাহিনীর হয়ে কাজ শুরু করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

প্রাথমিকভাবে এটি বি-১ এবং বি-২ মডেলের বোমারু বিমানের স্থলাভিষিক্ত হবে। এই বিমানবহরের উন্নয়ন, ক্রয় এবং পরিচালনা করতে ২০ হাজার ৩০০ কোটি মার্কিন ডলার ব্যয় হবে বলে জানিয়েছে ব্লুমবার্গ।

বর্তমানে ছয়টি বিমানের উৎপাদন কাজ চলছে বলে জানিয়েছে বি-২১ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান।

জেএন/এমআর

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...