চট্টগ্রামে ২০ লাখ ইয়াবাকাণ্ডে ১১ কারবারির সাজা

0

২০১৭ সালের ১৬ এপ্রিল গভীর সমুদ্রে ট্রলার থেকে ২০ লাখ ইয়াবা উদ্ধারের ঘটনায় ১১ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দিয়েছে চট্টগ্রামের একটি আদালত।

রোববার চট্টগ্রাম চতুর্থ অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ শরিফুল আলম ভুঁইয়ার আদালত এ রায় দেন।

আদালতের বেঞ্চ সহকারী ওমর ফুরাদ বলেন, ১৭ আসামির বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় ৮ জনের প্রত্যেকেকে ১৫ বছর করে কারাদণ্ড এবং অন্য ৩ আসামিকে ৫ বছর করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়। রায়ে খালাস পেয়েছেন ৬ জন। দণ্ডিতদের মধ্যে ৯ জনকে রায় ঘোষণার পর কারাগারে পাঠানো হয়।

১৫ বছর করে কারাদণ্ড পাওয়া আটজন হলেন- মো. মকতুল হোসেন, মো. নূর, হেলাল উদ্দিন, আব্দুল খালেক ওরফে বুদইন্যা, মো. জানে আলম, মো. লোকমান, মো. এনায়েতুল্লাহ ও নুরুল মোস্তফা।

পাঁচ বছর করে কারাদণ্ডে দণ্ডিত তিন আসামিরা হলেন মো. মোজাহার মিয়া, আব্দুল নূর ও আব্দুল জলিল।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০১৭ সালের ১৬ এপ্রিল ভোরে গভীর সাগরে এফভি মোহছেন আউলিয়া নামের মাছ ধরার ট্রলারটি থেকে ২০ লাখ ইয়াবাসহ আটজনকে গ্রেপ্তারের পরদিন মামলা করে র‍্যাব। ২০১৮ সালের এপ্রিলে অভিযোগপত্র দেয় পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। তাতে ১৭ জনকে আসামি করা হয়। ২০২০ সালের ১০ মার্চ চট্টগ্রাম মহানগর দায়রা জজ আদালতে ১৭ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। ১৪ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে এ রায় ঘোষণা করা হয়।
জেএন/এফও/এমআর

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...