জগদীপ ধনখড় ভারতের নতুন উপরাষ্ট্রপতি

0

ভারতের উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হয়েছে শাসক জোট ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্সের প্রার্থী জগদীপ ধনখড়। ১৬তম উপরাষ্ট্রপতি হিসেবে ১১ আগস্ট শপথ নেবেন পশ্চিমবঙ্গের এই সদ্য সাবেক রাজ্যপাল।

উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনে বিজয়ী ধনখড় পেয়েছেন ৫২৮টি ভোট। আর কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন বিরোধী জোটের প্রার্থী মার্গারেট আলভা পেয়েছেন ১৮২ ভোট। মোট ভোট পড়েছে ৭২৫টি। বাতিল হয়েছে ১৫টি ভোট।

শনিবার ভোট গণনা শেষে ফল ঘোষণা করেন লোকসভার সচিব প্রধান উৎপল কুমার সিং। ভোটের ফল ঘোষণার পরপরই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা নয়াদিল্লিতে ১১ নম্বর আকবর রোডে জগদীপ ধনখড়ের অস্থায়ী বাসভবনে গিয়ে তাকে অভিনন্দন জানান।

রাজস্থানের ঝুনঝুনু জেলার প্রত্যন্ত গ্রামে এক কৃষিজীবী পরিবারে জন্ম জগদীপ ধনখড়ের। চিতোরগড়ের সৈনিক স্কুল থেকে লেখাপড়া শেষ করে পদার্থবিদ্যায় স্নাতক এবং তারপর রাজস্থান বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইনে স্নাতক হন। ধনখড় রাজস্থানের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় আইনজীবী হয়ে ওঠেন এবং রাজস্থান হাইকোর্ট ও সুপ্রিম কোর্টে আইন চর্চা করেন। তিনি রাজস্থান হাইকোর্ট বার অ্যাসোসিয়েশনেরও সভাপতি ছিলেন।

জগদীপ ধনখড় ১৯৮৯ সালে রাজনীতিতে প্রবেশ করেন এবং একই বছর রাজস্থানের ঝুনঝুনু থেকে লোকসভায় নির্বাচিত হন। তিনি চন্দ্র শেখরের নেতৃত্বাধীন জনতা দল সরকারের সংসদীয় বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৯৩-৯৮ সাল পর্যন্ত তিনি রাজস্থান বিধানসভার আজমির জেলার কিষানগড় কেন্দ্রের প্রতিনিধিত্ব করেন। নবনির্বাচিত উপরাষ্ট্রপতির সহধর্মিণী সুদেশ ধনখড়। তাদের একটি কন্যা রয়েছে।

ধনখড় অতীতে নিজেকে ‘অনিচ্ছুক রাজনীতিবিদ’ বলে দাবি করেছেন। পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল হিসেবে ক্ষমতাসীন তৃণমূল কংগ্রেসের সঙ্গে তার একটি অশান্ত সম্পর্ক ছিল। তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব প্রায়শ তাকে ‘বিজেপির এজেন্ট’ হিসেবে কাজ করার জন্য অভিযুক্ত করেছে।

জেএন/কেকে

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...