চটেছে চীন, তাইওয়ানে সামরিক অভিযানের ঘোষণা

0

চীনের বারণ ও হুমকি অমান্য করেই তাইওয়ানের মাটিতে ইতোমধ্যেই পা রেখেছেন যুক্তরাষ্ট্রের হাউস অব রিপ্রেজেন্টেটিভসের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি। তাতে বেজায় চটেছে চীন, ঘোষণা করেছে তাইওয়ানের ভেতরে সামরিক অভিযানের।

মঙ্গলবার (২ আগস্ট) ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির তাইওয়ান সফরের জেরেই এমন পদক্ষেপ নিয়েছে দেশটির সামরিক বাহিনী।

চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র উইউ কিয়ান বলেন, চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মি সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থায় রয়েছে, তারা সামরিক অভিযানের জন্য সম্পূর্ণ প্রস্তুত। আমরা তাইওয়ানের বিভিন্ন স্থাপনা লক্ষ্য করে অভিযান চালাবো।

চীনের সার্বভৌমত্ব ও ভৌগলিক অখণ্ডতা, তাইওয়ানের বিচ্ছিন্নতাবাদীদের দমন ও তাইওয়ানের স্বাধীনতার নামে নিজেদের অভ্যন্তরীণ ইস্যুতে বাইরের শক্তির বাড়াবাড়ির জবাব হিসেবে পরিচালিত হবে এ অভিযান।’

আলাদাভাবে চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মির ইস্টার্ন থিয়েটার কমান্ড বলেছে যে মঙ্গলবার রাত থেকেই তাইওয়ানের কাছে যৌথ সামরিক অভিযান ও মহড়া পরিচালনা করবে তারা।

ইস্টার্ন কমান্ড জানিয়েছে, এই সামরিক মহড়া অনুষ্ঠিত হবে পুরো তাইওয়ানকে ঘিরে। দ্বীপটির উত্তর, দক্ষিণ-পশ্চিম ও দক্ষিণ-পূর্বে সমুদ্রে বিমান ও যুদ্ধজাহাজ মহড়ায় অংশ নেবে। এসব মহড়ায় দূরপাল্লার লাইভ ফায়ারিং ও ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষাও থাকবে। ৪ থেকে ৭ আগস্ট পর্যন্ত এই মহড়া চলবে।

তবে চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ঘোষিত সামরিক অভিযানে লক্ষ্যবস্তু কী হবে এবং ইস্টার্ন কমান্ডের মহড়া থেকে এটি আলাদা হবে কি না, তার বিশদ বিবরণ দেয়নি বেইজিং।

এদিকে বিমানবাহী রণতরি ইউএসএস রোনাল্ড রিগ্যানসহ চারটি যুদ্ধজাহাজ পূর্ব তাইওয়ানের কাছে মোতায়েন করেছে যুক্তরাষ্ট্র। বহরে আরও রয়েছে মিসাইল ক্রুজার ও ডেস্ট্রয়ার।

জেএন/পিআর

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...