কক্সবাজারে এক ঘন্টার ব্যবধানে বজ্রপাতে ৩ জেলে নিহত

0

কক্সবাজার জেলায় মাত্র এক ঘন্টার ব্যবধানে বজ্রপাতে তিন জেলে নিহত ও অপর দুই জেলে আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

আজ রবিবার (১৯ জুন) দুপুর ১২টা থেকে ১টার মধ্যে পৃথক দুই উপজেলায় হতাহতের ঘটনা ঘটে। এরমধ্যে দুপুর ১২টার দিকে কুতুবদিয়ার উত্তর ধুরং ইউনিয়নে চোল্লা পাড়ায় দুজন এবং দুপুর ১টার দিকে পেকুয়ার মগনামা ইউপির শরৎঘোনা এলাকায় একজনে জেলের মৃত্যু হয়।

নিহতরা হলেন, কুতুবদিয়া উপজেলার উত্তর ধুরুং চুল্লার পাড়া এলাকার জাকের উল্লাহর ছেলে ইমতিয়াজ (২৫) ও দক্ষিণ ধুরুং ইউনিয়নের ধুরুং কাঁচা গ্রামের ছাবের আহমদের ছেলে করিম (৩৫) এবং পেকুয়া উপজেলার মগনামা ইউনিয়ন ১নং ওয়ার্ডের শরতঘোনা এলাকার আহমদ হোসেনের ছেলে আলী আহমদ (৫০)।

প্রত্যক্ষদর্শী ও হাসপাতাল সূত্র জানায়, রবিবার সকাল থেকে কুতুবদিয়ায় জেলেরা সমুদ্র তীরে মাছ ধরার ট্রলার মেরামত করছিল। বেলা ১২ টার দিকে বোটের পাশেই বজ্রপাত ঘটে। এতে দুইজন নিহত ও দুজন আহত হন।

আহতদের বরাত দিয়ে উত্তর ধুরংয়ের স্থানীয়রা বলেন, ‘সাগরে মাছ আহরণ বন্ধ থাকায় ট্রলার সংস্কারের কাজ করছিলেন জেলেরা। দুপুর ১২টার দিকে বৃষ্টির সঙ্গে বজ্রপাত হলে ট্রলারে থাকা চার মাঝি আহত হন।

স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে কুতুবদিয়া হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক ইমতিয়াজ ও করিমকে মৃত ঘোষণা করেন।’

হাসপাতালের মেডিক্যাল অফিসার ডা. শাহীন আব্দুর রহমান বলেন, ‘বজ্রপাতে গুরুতর আহত চারজনকে হাসপাতালে আনা হয়। এদের মধ্যে করিম ও ইমতিয়াজ নামে দুইজন মারা গেছেন।’

এদিকে একই দিন দুপুর একটার সময় পেকুয়া উপজেলার মগনামা ইউনিয়নের আব্দুল্লাহ পাড়াস্থ ভোলা খালে বজ্রপাতে আলী আহমদ (৫০) নামের আরেক জেলে নিহত হয়েছেন।

পেকুয়ার মগনামা ইউপি চেয়ারম্যান ইউনুছ চৌধুরী বলেন, ‘রমজান আলী দুপুরে মাছ ধরতে বিলে যান। এ সময় বজ্রপাত হলে রমজান আলী ঘটনাস্থলেই মারা যান।’

জেএন/টিটি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...