বেনাপোলে চিকেনপক্স আক্রান্ত এক বাংলাদেশিকে হাসপাতালে স্থানান্তর

0

ভারত ফেরত বাংলাদেশি পাসপোর্ট এক যাত্রীকে বেনাপোল চেকপোস্ট থেকে যশোর ২৫০ শষ্যা বিশিস্ট জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

চিকেনপক্স আক্রান্ত হওয়ায় ওই যাত্রীকে হাসপাতালে স্থানান্তর করেছেন চেকপোস্ট স্বাস্থ্য বিভাগের চিকিৎসকরা। অনেকে তার শরীরের উপসর্গ দেখে মাঙ্কিপক্স সন্দেহ করলেও চিকিৎসকরা বলছেন তিনি মাঙ্কিপক্সে আক্রান্ত নয়। চিকেনপক্সে আক্রান্ত হয়েছে।

শুক্রবার (১০ জুন) দুপুরের দিকে আব্বাস আলী (৪২) নামে এই যাত্রীকে বেনাপোল চেকপোস্ট প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরিচর্যা কেন্দ্রের স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার মহসিনা আক্তার রুম্পা যশোর জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করেন।

এ ঘটনায় বেনাপোল চেকপোস্টে আতংক ছড়িয়ে পড়ে। আব্বাস আলী ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা উপজেলার ডাওড়া গ্রামের ইব্রাহিমের ছেলে।

ইমিগ্রেশন সূত্রে জানা যায়, আব্বাস আলী গত ৩ জুন বৈধ পাসপোর্ট ও ভিসা নিয়ে ভারতে যান। আজ শুক্রবার দুপুরে ভারত থেকে ফেরার সময় তার শরীরে মাঙ্কিপক্স এর মত উপসর্গ দেখে ইমিগ্রেশন কর্তৃপক্ষ দ্রুত তাকে স্বাস্থ্য কেন্দ্রে পাঠান।

সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে চিকেনপক্স এ আক্রান্ত বলে যশোর ২৫০ শষ্যা বিশিস্ট জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। এরপর তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বেনাপোল চেকপোস্ট প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরিচর্ষা কেন্দ্রের স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার মহসিনা আক্তার রুম্পা বলেন, পরীক্ষা না করে কিছুই বলা যাবে না। সে মূলত চিকেনপক্সে আক্রান্ত। তাকে বিশেষ ব্যবস্থায় যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। সেখানে উর্ধতন কর্মকর্তারা বিষয়টি দেখবেন।

বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাজু আহম্মেদ বলেন, ওই ব্যক্তি আজ দুপুরে ভারত থেকে দেশে ফেরার পর ইমিগ্রেশনে পাসপোর্ট দিলে তার শরীরে বড় বড় পক্সের উপসর্গ দেখে আমরা দ্রুত তাকে স্বাস্থ্য কেন্দ্রে পাঠিয়ে দেই। পরে জেনেছি তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. আখতারুজ্জামান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ভারত ফেরত আব্বাস আলী নামে এক বাংলাদেশী পাসপোর্টযাত্রীকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তিনি চিকেনপক্ষে আক্রান্ত বলে প্রাথমিক ভাবে ধারনা করছি। আগামীকাল তার পরীক্ষা-নীরিক্ষা করে নমুনা ল্রাবে পাঠানো হবে। তাপর পর সঠিক ভাবে সবকিছু বলা যাবে।

জেএন/টিটি

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...