এত বড় বিপর্যয় কখনও দেখেননি!

0

বাবা-ছেলে—মেগাস্টার চিরঞ্জীবী ও মেগা পাওয়ার স্টার রাম চরণের নতুন সিনেমা ‘আচার্য’ মুক্তি পেয়েছে ২৯ এপ্রিল। প্রথম দিন বিশ্ব বক্স অফিসে মোটামুটি অর্থ সংগ্রহ করলেও এর পরের দিন থেকে ধস নামা শুরু। বাণিজ্য বিশ্লেষকেরা বলছেন, বক্স অফিসে এত বড় বিপর্যয় রাম চরণ, চিরঞ্জীবী; এমনকি তেলেগু ইন্ডাস্ট্রিও দেখেনি।

মুক্তির তিন দিনে বিশ্ব বক্স অফিসে ‘আচার্য’ সংগ্রহ করে ৭৩ কোটি রুপি (গ্রস)। অন্ধ্র বক্স অফিস এ সিনেমাকে ‘ডাবল ডিজাস্টার’ আখ্যা দিয়েছে।

অন্যদিকে বিনোদনভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ফিল্মিবিট বলছে, বক্স অফিস সংগ্রহের দিক থেকে ‘আচার্য’ সিনেমাকে ‘অল টাইম ডিজাস্টার’ বলা যায়।

কারণ? পোর্টালটির প্রতিবেদন, সিনেমাটির প্রেক্ষাগৃহ স্বত্ব-মূল্য ১৩২ কোটি রুপি হলেও মাত্র ৪৬ কোটি রুপি (নেট) সংগ্রহ করতে পেরেছে, যা তেলেগু ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে ‘অল টাইম বিগেস্ট ডিজাস্টার’।

অন্ধ্র প্রদেশ ও তেলেঙ্গানা রাজ্যে সিনেমাটির চার দিনের সংগ্রহ যথাক্রমে ২৯.৫০ কোটি, ৫.১৫ কোটি, ৪.০৭ কোটি ও ৫৩ লাখ রুপি।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, বড় ধরনের লোকসানের মুখোমুখি হতে যাচ্ছে ‘আচার্য’। বক্স অফিসে এমন বাজে অবস্থা আর কখনও দেখতে হয়নি রাম চরণ ও চিরঞ্জীবীকে।

২০১৯ সালের অক্টোবরে সিনেমাটির আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হয়। ২০২০ সালের জানুয়ারিতে প্রধান অংশের শুট শুরু হয়। তবে করোনা মহামারির কারণে শুটিংয়ে বিলম্ব হয়। অবশেষে ২৯ এপ্রিল বিশ্বব্যাপী মুক্তি পায় সিনেমাটি।

অ্যাকশন-সোশ্যাল ড্রামা ‘আচার্য’ নির্মাণ করেছেন কোরাতালা শিবা। এতে চিরঞ্জীবী-রাম চরণ ছাড়াও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় অভিনয় করেছেন পূজা হেজ ও সোনু সুদ।

টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবর, চলতি বছরের অন্যতম বহুল প্রতীক্ষিত ‘আচার্য’ সিনেমার বাজেট ১৪০ কোটি রুপি। এতে আরও অভিনয় করেছেন যিশু সেনগুপ্ত, পোসানি কৃষ্ণ মুরালি ও অজয়।

মাটিনি এন্টারটেইনমেন্ট ও কোনিডেলা প্রডাকশন কোম্পানির ব্যানারে সিনেমাটি প্রযোজনা করেছেন নিরঞ্জন রেড্ডি ও রাম চরণ।

এন-কে

আরও পড়ুন
লোড হচ্ছে...